রবিবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২০, ০৩:৩৪ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
দীঘিনালায় পার্বত্য প্রেসক্লাব ও সবুজ পাতার দেশ’র উদ্যোগে দুই গৃহহীনের ঘর নির্মাণ যারা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য বুড়িগঙ্গায় ভাসিয়ে দিতে চায় তাদের বঙ্গোপসাগরে ভাসিয়ে দিতে মুক্তিযুদ্ধের চেতনার মানুষ প্রস্তুত নড়াইলে স্বপ্নের খোঁজে ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে শীতবস্ত্র পেলো এতিম শিশু, বেদেপল্লী ও মানসিক ভারসাম্যহীনরা রংপুরের পীরগঞ্জে চাকুরী দেওয়ার নামে টাকা আত্মসাৎ উলিপুরে কবর দখল করে বসতঘর নির্মাণ কুড়িগ্রামে দলিত ও বঞ্চিত সম্প্রদায়কে আদমশুমারী-২০২১ এ অন্তর্ভুক্তির দাবিতে মানববন্ধন কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলায় শিল্পী সমিতির কমিটি গঠিত কুড়িগ্রামে নাগেশ্বরী ও ফুলবাড়ী উপজেলার পুলিশের মাদকবিরোধী অভিযানে গাঁজা ও হিরোইন সহ ১ মাদক ব্যবসায়ী আটক দীঘিনালায় জায়গা-জমি সংক্রান্ত পারিবারিক কলহে যুবকের মৃত্যু নওগাঁর সাপাহারে ফেন্সিডিল সহ যুবক আটক পলাশবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগ-বিএনপি ও স্বতন্ত্র প্রার্থীর মধ্যে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের সম্ভাবনা মুজিববর্ষ উপলক্ষে নড়াইলে ফুটবল খেলায় মহাজন একাদশ চ্যাম্পিয়ন দীঘিনালায় বিরল রোগ আক্রান্ত ১০বছরের শিশু আরিফ বাঁচতে চায় দিনাজপুরে এন্টি টেররিজম ইউনিট কর্তৃক জঙ্গী সংগঠন আল্লাহর দলের আঞ্চলিক প্রধান আটক পলাশবাড়ী পৌরসভা নির্বাচন সুষ্ঠু হবে-নির্বাচন কমিশনার বেগম কবিতা খানম

আগামী ১০ ডিসেম্বর পলাশবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে ভোটাররা আমার কর্মের মুল্যায়ন করবে-মেয়র প্রার্থী বিপ্লব

আল কাদরি কিবরিয়া সবুজ, (গাইবান্ধা) প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার ১৯ নভেম্বর, ২০২০
  • ৫২ বার পঠিত

আসন্ন পলাশবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী গোলাম সরোয়ার প্রধান বিপ্লব বলেছেন দীর্ঘ ১৮ বছর পর অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে পলাশবাড়ী পৌরসভা নির্বাচন। একটি বিশেষ মহল আইনের বেড়া জালে আটকে রেখেছিল জনগনের ভোটাধিকার। জনগনের ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনার লক্ষে আমি উদ্যোগ গ্রহণ করেছিলাম। এরপর লাল ফিতায় আটকে রাখা পৌরসভার ফাইল নিয়ে দৌড়াতে হয়েছে মহামান্য হাইকোর্ট, সচিবালয়, এমন কি নির্বাচন কমিশন পর্যন্ত। শুধু তাই নয় দুই বছর আইনী লড়াইয়ের পাশাপাশি জনগনকে সাথে নিয়ে অনেক আন্দোলন সংগ্রাম করার পর পৌরসভার প্রজ্ঞাপন ঘোষণা করে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়। সর্বশেষ গত ৩ নভেম্বর ২০২০ পৌরসভার তফসিল ঘোষনা করে নির্বাচন কমিশন। এরই ফলশ্রুতিতে আগামী ১০ ডিসেম্বর পলাশবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনের ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। তিনি ১৯ নভেম্বর বৃহস্পতিবার সকালে বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকদের সাথে একান্ত সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, আমি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ পরিবারের একজন সন্তান, আমার বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা মরহুম আলহাজ্ব সাকোয়াতজ্জামান বাবু ছিলেন সদর ইউনিয়নের ৪ বারের নির্বাচিত চেয়ারম্যান। আমার চাচা শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা। আমি উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, গাইবান্ধা জেলা বাস মিনিবাস কোচ ও মাইক্রোবাস শ্রমিক ইউনিয়নের একাধারে তিন বার নির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক। দুঃখ জনক হলেও সত্য বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ থেকে মেয়র পদে দলীয় মনোনয়ন চেয়ে আমি ব্যর্থ হয়েছি।কিন্তু জনগনের ভালোবাসা শ্রদ্ধা ও সম্মান আমাকে অভিভূত করেছে। তারাই আমাকে মনোনীত করেছে মেয়র প্রার্থী হিসাবে। সেই ভালোবাসা নিয়েই আমি পৌর নির্বাচনে (স্বতন্ত্র) প্রার্থী হিসাবে মেয়র পদে নির্বাচন করছি। ইতিহাস স্বাক্ষী যারা পৌর আন্দোলনে আমাকে সহযোগিতা করে ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনতে সর্বদা সহযোগিতা করেছেন তারা আমার পাশে সব সময় আছেন থাকবেন। যারা পৌর সভার বিরোধিতা করেছেন তারাই আজ পৌরসভার প্রার্থী হয়ে নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করছেন। আমার বিশ্বাস ১০ ডিসেম্বর নির্বাচনের দিন জনগন আমার কর্মের মুল্যায়ন করবে। যারা তরুন প্রজন্মকে ভোটাধিকার থেকে বঞ্চিত করেছিল ব্যালটের মাধ্যমে তরুনরাই তার জবাব দেবে। আমি নির্বাচনে বিজয়ী হলে পলাশবাড়ী পৌরসভাকে একটি মডেল পৌরসভা হিসেবে উন্নতি করবো ইনশাআল্লাহ।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..