বৃহস্পতিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ০৩:২৪ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ষড়য‌ন্ত্রের প্রতিবা‌দে মান্দায় ম‌হিলা আওয়ামী লী‌গের বি‌ক্ষোভ সমা‌বেশ চাঁপাইনবাবগঞ্জে জেলা প্রশাসনের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিষ্ট্রেটের নেতৃত্বে অভিযান মহিমাগঞ্জ চিনিকলের আখচাষী ও শ্রমিক কর্মচারীদের সড়ক অবরোধ ও বিক্ষোভ ফুলছড়িতে ইউনিয়ন যুবলীগের অফিস উদ্বোধন করলেন ডেপুটি স্পিকার গোবিন্দগঞ্জে উগ্র-মৌলবাদ ও সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে ছাত্রলীগের বিশাল সমাবেশ অনুষ্ঠিত কুড়িগ্রামে সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির বাস্তবায়ন শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত কুড়িগ্রামে মোটর সাইকেল দুর্ঘটনায় রায়গঞ্জের সাবেক ইউপি চেয়ারম্যানের মৃত্যু দুর্গাপুরে গলায় ফাঁস দিয়ে মানসিক ভারসাম্যহীন যুবকের আত্মহত্যা বঙ্গোপসাগর থেকে ৩ লাখ ইয়াবাসহ সাত মিয়ানমার নাগরিক আটক বঙ্গবন্ধুর ভাস্কার্য্য হুমকি প্রদানকারী মমিনুল হকের বিরুদ্ধে কুড়িগ্রামে মানববন্ধন ধামইরহাটে আওয়ামী মহিলালীগের জঙ্গিবাদ- সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী র‌্যালি ও বিক্ষোভ সমাবেশ ধামইরহাটে কর্মজীবি ল্যাকটেটিং মাদার হেলথ ক্যাম্পে সেবা পেল ৪ শতাধিক মা খুলনা মহানগরীতে মাদক বিরোধী অভিযানে গাঁজা ও ইয়াবাসহ গ্রেফতার ৪ বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ ও পুনর্বাসন সোসাইটি কেন্দ্রীয় যুব কমান্ডের মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলা শাখার কমিটি গঠন রাজশাহীতে পৌরনির্বাচন কে কেন্দ্র করে তৃনমূল সিলেকশন ভোট নিয়ে অসন্তোষ

গাইবান্ধায় বন্যা পরিস্থিতির চরম অবনতি: পানির নিচে শহর-গ্রাম রাস্তা-ঘাট

আল কাদরি কিবরিয়া সবুজ, (গাইবান্ধা) প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট সময় শুক্রবার ২ অক্টোবর, ২০২০
  • ৭৭ বার পঠিত


টানা বর্ষণ আর উজানের পানিতে তলিয়ে গেছে গাইবান্ধার পাঁচ উপজেলার বিস্তীর্ণ এলাকা। পানির নিচে শহর-গ্রাম, হাসপাতাল-মহাসড়ক। ডুবে গেছে ফসলের মাঠ। পানিতে ভেসে গেছে পুকুর ও খামারের মাছ। সুন্দরগঞ্জ ও পলাশবাড়ীতে ভেঙেছে বাঁধ। সবমিলিয়ে গাইবান্ধায় সার্বিক বন্যা পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়েছে। পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় ফুলে ফেঁপে উঠেছে জেলার সব নদ-নদী। গত কয়েকদিনের টানা বর্ষণ আর উজান থেকে নেমে আসা ঢলে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার উপর দিয়ে প্রবাহিত করতোয়া নদীর পানি দুই দশকের রেকর্ড ভেঙ্গে বিপদসীমার ১১৬ সে.মি উপর দিয়ে প্রবাহিত হওয়ায় গোবিন্দগঞ্জ পৌরসভা ও ১৩টি ইউনিয়নের বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হয়েছে। ঢাকা-দিনাজপুর আঞ্চলিক মহাসড়কের ৩টি অংশ বন্যার পানিতে ডুবে যাওয়ায় গোবিন্দগঞ্জ থানামোড় থেকে দিনাজপুর সড়কে ভারী যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটিতে বন্যার পানি ওঠায় ব্যাহত হচ্ছে স্বাস্থ্যসেবা।

এদিকে ঘাঘট নদীর পানি বিপদসীমার ২০ সে.মি উপর দিয়ে প্রবাহিত হওয়ায় বন্যার কবলে পড়ে সুন্দরগঞ্জ উপজেলার বামনডাঙ্গা ও সর্বানন্দ ইউনিয়নের অর্ধলক্ষাধিক মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। নিম্নাঞ্চল তলিয়ে এখন উঁচু এলাকায় প্রবেশ করছে পানি। উপজেলার সর্বানন্দ ইউনিয়নের দক্ষিণ সাহাবাজ (মতিন বাজার) গুচ্ছ গ্রামে স্থানীয়দের নির্মিত বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধ ধ্বসে গিয়ে প্লাবিত হয়েছে গ্রামের পর গ্রাম। ভেসে গেছে সহস্রাধিক পুকুর ও মৎস খামারের কোটি টাকার মাছ।

এছাড়া পলাশবাড়ী উপজেলার কিশোরগাড়ী ইউনিয়নে টোংরারদহ এবং সুলতানপুর বড়বাড়ী নামক স্থানে করতোয়া নদীর উপর পানি উন্নয়ন বোর্ডের বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধ ভেঙ্গে বন্যায় প্লাবিত হয়েছে উপজেলার কিশোরগাড়ি ও হোসেনপুর ইউনিয়নের বিস্তীর্ণ এলাকা। অপরদিকে ঘাঘট নদীর পানি বৃদ্ধির ফলে সাদুল্লাপুর উপজেলার নলডাঙ্গা, রসুলপুর, কামারপাড়া এবং সদর উপজেলার বল্লমঝাড় ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় পানি ঢুকে পড়েছে।

গাইবান্ধা পানি উন্নয়ন বোর্ড জানিয়েছে, শুক্রবার (২ অক্টোবর) দুপুর ১২টায় করতোয়া নদীর পানি ১১৬ সেন্টিমিটার, ঘাঘট নদীর পানি ২৬ সেন্টিমিটার ও ব্রহ্মপুত্রের পানি ৫ সেন্টিমিটার বিপদসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। তবে পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকলেও তিস্তার পানি এখনও বিপদসীমার ৬৪ সেন্টিমিটার নিচে রয়েছে।

গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, ইতোমধ্যে বন্যার পানিতে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় ২হাজার ৭৮০ হেক্টর জমির আমনধান, ২১০ হেক্টর জমির শীতকালীন শাকসবজি সহ প্রায় তিনহাজার হেক্টর জমির ফসল নষ্ট হয়ে গেছে।

গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার রামকৃষ্ণ বর্মন জানান, বন্যার্ত মানুষের সহায়তার জন্য প্রশাসনের পক্ষ থেকে দেড় হাজার মানুষকে ত্রাণ সহায়তা দেয়া হয়েছে। এছাড়া ২শ’ মানুষের মাঝে শুকনো খাবার বিতরণ করা হয়েছে। বন্যা পরিস্থিতি মোকাবেলায় ইতোমধ্যে ৬টি আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে। বন্যা কবলিত এলাকাগুলোতে সার্বক্ষণিক খোঁজ-খবর রাখা হচ্ছে। যে কোন ধরণের পরিস্থিতি মোকাবেলায় প্রশাসনের প্রস্তুতি রয়েছে।

এদিকে বন্যার পানি দ্রুত বৃদ্ধি পেয়ে ঢাকা-দিনাজপুর আঞ্চলিক মহাসড়কের ৩টি অংশ বন্যার পানিতে ডুবে যাওয়ায় দুর্ঘটনার আশংকায় বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে গোবিন্দগঞ্জ থানামোড় হয়ে চলাচলকারী সকল প্রকার ভারী যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে বলে গাইবান্ধা সড়ক ও জনপথ বিভাগের উপ-সহকারী প্রকৌশলী রুবেল সরকার নিশ্চিত করেছেন।

অপরদিকে উপজেলার ফুলবাড়ী ইউনিয়নের ফতেউল্ল্যাপুর শ্যামপুর গ্রামে বাঁধের মাটি কেটে বাঁধ সংস্কারের অভিযোগ পাওয়া গেছে পানি উন্নয়ন বোর্ডের ঠিকাদারের বিরুদ্ধে। ফলে ঝুঁকির মুখে পড়েছে ওই এলাকার বন্যা নিয়ন্ত্রন কার্যক্রম। এ বিষয়ে পানি উন্নয়ন বোর্ড গাইবান্ধার নির্বাহী প্রকৌশলী মোখলেছুর রহমান জানান, বাঁধের মাটি কাটার বিষয়টি আমি জানি, পানি কমে গেলে ঠিকাদার ওই স্থানের মাটি ভরাট করে দেবে।

এদিকে ঘাঘটের অব্যাহত পানি বৃদ্ধির ফলে জেলার সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় বামনডাঙ্গা ও সর্বানন্দ ইউনিয়নের অর্ধলক্ষাধিক মানুষ চারদিন ধরে পানিবন্দি থাকলেও সরকারি কোন সহায়তা পাননি বলে অভিযোগ বানভাসিদের। এমনকি জনপ্রতিনিধি ও স্থানীয় প্রশাসনকে জানালেও কেউ তাদের খোঁজ খবরও নেয়নি। এতে অনাহার-অর্ধাহারে দিনাতিপাত করছেন বন্যার্তরা। বিশুদ্ধ পানি ও খাবার সঙ্কট দেখা দেয়ায় চরম বেকায়দায় রয়েছেন তারা।

সুন্দরগঞ্জ উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা ওয়ালিফ ম-ল বলেন, বামনডাঙ্গা ও সর্বানন্দ ইউনিয়নের পানিবন্দি পরিবারগুলোর মধ্যে ১ হাজার পরিবারের জন্য ১০ মেট্রিকটন জিআরের চাল বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। সেগুলো বিতরণের কাজ চলছে।

অপরদিকে গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলায় বাঁধ ভেঙ্গে বন্যায় প্লাবিত দুর্গত এলাকা পরিদর্শন করলেন স্থানীয় সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট উম্মে কুলসুম স্মৃতি। বৃহস্পতিবার (০১ অক্টোবর) সকালে প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও দলীয় নেতৃবৃন্দকে সাথে নিয়ে বাংলাদেশ কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদকও গাইবান্ধা-৩ (সাদল্লাপুর-পলাশবাড়ী) আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট স্মৃতি দুর্গতদের মাঝে ত্রাণ বিতরণের উদ্বোধন করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..