শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ০৫:৫৫ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
দিনাজপুরে এন্টি টেররিজম ইউনিট কর্তৃক জঙ্গী সংগঠন আল্লাহর দলের আঞ্চলিক প্রধান আটক পলাশবাড়ী পৌরসভা নির্বাচন সুষ্ঠু হবে-নির্বাচন কমিশনার বেগম কবিতা খানম খুলনা মহানগরীর শিরোমনি মধ্যপাড়া এলাকায় সেনা সদস্য আলামীন শেখের পুরুষাঙ্গ কেটে দিয়েছেন তার স্ত্রী কুড়িগ্রামের রাজার হাটে হিরোইন ও ইয়াবাসহ ২ যুবক আটক সুন্দর পৃথিবী ছেড়ে একদিন চলে যেতে হবে…” বিজয় সরকারের ৩৫তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ (৪ ডিসেম্বর) পলাশবাড়ী প্রেসক্লাবের নব-নির্বাচিত কমিটির দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত গোবিন্দগঞ্জে চা দোকানীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার মাদক কারবারিদের বাড়ির সামনে ছবি টাঙ্গিয়ে দেওয়া হবে ভোটারের মন জয় করতে যাদু কুড়িগ্রাম পৌর নির্বাচনে মেয়র পদপ্রার্থীদের মধ্যে যাচাই-বাছাইয়ে ৫জনের মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলায় ভ্রাম্যমান আদালতের নির্দেশে মাদক সেবনের অপরাধে জেল ও জরিমানা খুলনা মহানগরী সহ ও খুলনা জেলার নয়টি উপজেলায় একযোগে ১৬টি ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় সমাহিত হলেন জনপ্রিয় শিক্ষক ও রাজনৈতিক নেতা দেওয়ান হালিমুজ্জামান ধামইরহাটে সড়ক ও জনপদের কাছে জনগণের অসন্তোষ-ক্ষোভ প্রকাশ গুইমারায় আলোচিত স্বামী হত্যায় দায়ে স্ত্রীসহ ৫জনের মৃত্যুদণ্ড

দিনাজপুরের খানসামায় বিএনপির ইউনিয়ন কমিটিকে কেন্দ্র করে প্রতিদিনই চলছে ব্যাপক উত্তেজনা

চৌধুরী নুপুর নাহার তাজ দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার ২৯ অক্টোবর, ২০২০
  • ১০০ বার পঠিত

দিনাজপুরের খানসামায় বিএনপির ইউনিয়ন কমিটিকে কেন্দ্র করে প্রতিদিনই চলছে ব্যাপক উত্তেজনা।
তার ধারাবাহিকতায় গতকাল রাত ৮ টার সময় উপজেলার বিএনপির নেতাবৃন্দ ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড কমিটির সভাপতি ও সাধারন সম্পাদকসহ প্রায় ৫০০ নেতাকর্মী বৃন্দ পাকেরহাটস্থ খানসামা উপজেলা বিএনপির কমিটি আহ্বায়ক মোঃ আমিনুল হক চৌধুরীর দোকানে একত্রিত হয়ে তাকে অবরুদ্ধ করা হয়।

পূর্বের ঢাকায় বসে আহবায়ক সহ দুজন যুগ্ন আহবায়ক মিলে কমিটি করায় বিতর্ক তৈরী হয়। বিতর্কিত কমিটি বাদ দিয়ে নতুন কমিটির রেজুলেশন কয়েক দিন পূর্বে করা হয়েছিলো যা প্রেসব্রিফিং এর মাধ্যমে কমিটির আত্বপ্রকাশ করার কথা ছিলো কিন্তু তিনি সেই কমিটির আত্নপ্রকাশ না করে কালক্ষেপণ করায় নেতাকর্মীরা ক্ষিপ্ত হয়ে তাকে অবরুদ্ধ করে রাখে।

পরে নেতাকর্মীদের সাথে আহ্বায়কের বাক যুদ্ধে নিজের আত্মসম্মান বাঁচাতে দোকান থেকে আহ্বায়ক আমিনুল হক চৌধুরী কৌশলে পালিয়ে নিজ বাড়িতে যান। উত্তেজিত নেতাকর্মীরা তার কিছুক্ষন পরেই আহ্বায়ক আমিনুল হক চৌধুরীর বাড়িতে যান। প্রায় দুঘন্টা রাস্তায় অবস্থান করার পরে আমিনুর হকের ভাতিজা মাসুদ ইকবাল চৌধুরী মর্ডান ও মোজাম উদ্দিন এসে জানান তিনি শারীরিক ভাবে অসুস্থতা বোধ করছেন। তাই আপনাদের সাথে আজকে কথা বলবেন না, আগামীকাল কথা বলতে চেয়েছেন।

এ সময় আমিনুল হক চৌধুরীর বাড়ির মসজিদে মাইকে এলাউন্স করা হয় যে তার বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা হচ্ছে। সে এলাউন্স শুনে পুরোগ্রামের নারী পুরুষ সবাই উত্তেজিত ভাবে একত্রিত হয়ে আমিনুল ইসলামের বাড়িতে আসেন। এময় যুগ্ন আহবায়ক রবিউল আলম তুহিন বলেন, আমরা এখানে কোন প্রকার অপৃতিকর ঘটনা ঘটাতে আসিনি। আমরা শুধু আহ্বায়কের কাছে জানতে চাই, আপত্তিকর ইউনিয়ন কমিটিটি বিলুপ্ত করে নতুন যে কমিটিটি করা হয়েছে তা সাংবাদিকদের কাছে প্রেসবিফিং করে প্রকাশ করার কথা ছিলো তা তিনি করবেন কিনা সেটা আমরা শুনেই এখান থেকে চলে যাবো।

একপর্যায়ে সাংবাদিকরা আমিনুল হক চৌধুরীর বাড়িতে গিয়ে তার সাথে এবিষয়ে আলোচনা করলে তিনি জানান, যে কমিটি পূর্বে করা হয়েছিলো সেটিই বহাল থাকবে, পরবর্তীতে নতুন কোন কমিটি ঘোষনা দেওয়ার সুযোগ নেই। দরকার হলে আমি দল ত্যাগ করবো।

বিএনপির যুগ্ন আহবায়ক রবিউল আলম তুহিন এর সাথে কথা বললে তিনি জানান, পূর্বের আপত্তিকর ইউনিয়ন কমিটিকে বাতিল করে আমরা সর্বসম্মতিক্রমে নতুন কমিটি করেছি, আহবায়ক নতুন কমিটির অনুমোদন দেওয়ার লক্ষে দীর্ঘ দিন যাবৎ প্রেসব্রিফিং করবো করছি বলে সময় পার করছেন তাই খানসামা উপজেলা বিএনপির উপজেলা কমিটি, ইউনিয়ন কমিটি ও ওয়ার্ড কমিটির নেতাকর্মীরা চরম উত্তেজনায় তার দোকান থেকে বাড়ী পর্যন্ত উপস্থিত হয়েছিলো।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..